বৃদ্ধকে কাগজ কুড়াতে দেখে চাল-ডাল কেনার টাকা দিলেন ডিসি

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৮ মার্চ ২০২০, ১৯:৩৮

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হওয়া নিষেধ। প্রশাসনের পক্ষ থেকে বিষয়টি কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ করা হচ্ছে। আর তা করতে গিয়ে কঠোর পদক্ষেপ নিচ্ছেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যসহ সরকারি কর্মকর্তারা। বয়স্ক ব্যক্তিদের সাথেও বাড়াবাড়ি করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। তবে বেশ কিছু কর্মকর্তা প্রশংসাও কুড়াচ্ছেন।

তেমনই এক ঘটনা ঘটেছে শুক্রবার বিকালে রাজশাহীর তানোর উপজেলায়। এ দিন বর্তমান পরিস্থিতিতে পেটের দায়ে কাগজ কুড়াতে বের হয়েছিলেন প্রায় ৬০ বছরের এক বৃদ্ধ। তাকে বাজারে দেখে পুলিশ তার দিকে এগিয়ে যায়। সাথে ছিলেন জেলা প্রশাসক (ডিসি) হামিদুল হক। তাদের দেখে ভীতসন্ত্রস্ত বৃদ্ধ আগেই হাতজোড় করে ক্ষমা চান এবং বাইরে বের হওয়ার কারণ জানান। এতে আবেগ আপ্লুত ডিসি চাল-ডাল কেনার টাকা দিয়ে ওই বৃদ্ধকে বাড়ি পাঠান।

পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে একটি ছবি পোস্ট করে বিষয়টির বিবরণ দেন হামিদুল হক। এটি ফেসবুকে রীতিমতো ভাইরাল হয়ে গেছে। মানবিক এমন কাজে প্রশংসায় ভাসছেন তিনি।

তিনি ফেসবুকে লেখেন, ‘হায় করোনা! তুমি সকলকে একটু করুণা করো। অন্তত নাম না জানা এ বৃদ্ধের কোনো ক্ষতি করো না। এ মিনতি করি। সৃষ্টিকর্তা সবাইকে ভালো রাখুন। সারা বিশ্ব হোক করোনা ও করুণামুক্ত। ভালো থেকো বৃদ্ধ বাবা। আমি তোমার খবর রাখব নিশ্চয়।’

এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে হামিদুল হক বলেন, ‘বৃদ্ধ দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করেননি। দারিদ্র্যতার নির্মমতাকে সাক্ষী রেখে তিনি আত্মসমর্পণ করেছেন। এমন করে কয়জন! তার আত্মসমর্পণ আমাদের সবাইকে আবেগ আপ্লুত করেছে। আমরা তার খেয়াল রাখব। শনিবার সকালেও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে ওই বৃদ্ধের খোঁজ নিয়েছি।’

এবিএন/মমিন/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ