বিডিনিউজ সম্পাদক তৌফিক ইমরোজকে দুদকের নোটিশ

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০৬ নভেম্বর ২০১৯, ০০:৩৩

আর্থিক কেলেংকারির অভিযোগে দেশের প্রথম অনলাইন নিউজপোর্টাল বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম এর প্রধান সম্পাদক তৌফিক ইমরোজ খালিদীকে তলব করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) বিডিনিউজ কার্যালয়ে একটি চিঠি পাঠিয়েছে কমিশন৷ এতে অভিযোগ অনুসন্ধানের স্বার্থে আগামী ১১ নভেম্বর সকাল সাড়ে ১০ টায় খালিদীকে দুদক কার্যালয়ে উপস্থিত থাকতে বলা হয়েছে।

চিঠিতে বলা হয়, তৌফিক ইমরোজ খালিদীর নিজের এবং বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের হিসাবে ‘বিপুল পরিমাণ টাকা স্থানান্তরের মাধ্যমে অবস্থান গোপন’ এবং বিভিন্ন ‘অবৈধ কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে জ্ঞাত আয়ের সাথে অসামঞ্জস্যপূর্ণ সম্পদ' অর্জনের অভিযোগে তার বক্তব্য জানা প্রয়োজন৷

উল্লেখ্য, চলতি বছর অক্টোবরের শুরুতে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমে ৫০ কোটি টাকা বিনিয়োগ করেছিল নিউ ইয়র্কভিত্তিক একটি কোম্পানির সহযোগী প্রতিষ্ঠান ‘এলআর গ্লোবাল বাংলাদেশ’৷ বিনিয়োগের পরই পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ এ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান ড. এম খায়রুল হোসেনের সভাপতিত্বে এক জরুরি কমিশন সভা করে এ বিনিয়োগ আটকানোর সিদ্ধান্ত হয়। এরপর এই বিনিয়োগের উৎস কী, লন্ডন থেকে ৫০ কোটি টাকা কারা, কী উদ্দেশ্যে দিল- তার অনুসন্ধানে নামে গোয়েন্দা বিভাগ।

অক্টোবরের মাঝামাঝি সময়ে ওই সভা শেষে বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মো. সাইফুর রহমান এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানান, এলআর গ্লোবাল বাংলাদেশ এ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি লিমিটেড নামক সম্পদ ব্যবস্থাপক কোম্পানি বা উহার ব্যবস্থাপনাধীন ফান্ড থেকে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমে ৫০ কোটি বিনিয়োগ শীর্ষক সংবাদ কমিশনের দৃষ্টি আকৃষ্ট হয়েছে। ‘এ সংক্রান্ত সমুদয় তথ্যাদি একদিনের মধ্যে কমিশনে দাখিল করার জন্য উক্ত সম্পদ ব্যবস্থাপক কোম্পানিকে নির্দেশ প্রদানের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে।

কমিশন কর্তৃক এ সংক্রান্ত পূর্ণাঙ্গ তথ্য প্রাপ্তি ও বিশ্লেষণের পূর্বে উল্লেখিত বিনিয়োগ ও বিনিয়োগ সংক্রান্ত কার্যক্রম হতে বিরত থাকার জন্য সংশ্লিষ্ট পক্ষগুলোকে নির্দেশ প্রদানের সিদ্ধান্ত সভায় নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন সাইফুর রহমান।

সূত্র বলছে, ২৪ ঘণ্টা সময় বেঁধে দিলেও এখন পর্যন্ত এর বিস্তারিত কোনো তথ্য বিএসইসিকে জমা দেওয়া হয়নি।

এদিকে তৌফিক ইমরোজ খালিদী তিন কোটি টাকা দাবি করেছেন বলে অভিযোগ করা হয়েছে। চাঁদা চাওয়ার একটি অডিও টেপ গোয়েন্দাদের হাতে পৌঁছেছে।

সংশ্লিষ্ট কয়েকটি সূত্র বলছে, পদ্মা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক তার সঙ্গে বিডিনিউজের প্রধান সম্পাদকের কথোপকথনের অডিও টেপ গোয়েন্দাদের কাছে হস্তান্তর করেছেন। তৌফিক ইমরোজ খালিদী এর আগেও ওই ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের কাছ থেকে দেড় কোটি টাকা নিয়েছিলেন বলে অভিযোগ করা হয়েছে।

১৮তম ন্যাম সম্মেলনে যোগদান উপলক্ষে আজরবাইজানে চার দিনের সফর নিয়ে গত মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী একজন সম্পাদককে ইঙ্গিত করে বলেছিলেন, একজন সম্পাদক একজন ব্যাংকের এমডিকে ফোন করে টাকা দাবি করেছেন এবং হুমকি দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী ওই সম্পাদকের নাম বলেননি।

এরপর থেকে কে ওই সম্পাদক তা নিয়ে ব্যাপক আলোচনা হচ্ছে রাজনৈতিক এবং সামাজিক অঙ্গনে।

এবিএন/শংকর রায়/জসিম/পিংকি

এই বিভাগের আরো সংবাদ