শিগগিরই আবরার হত্যা মামলার চার্জশিট : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১০ অক্টোবর ২০১৯, ১৪:২৮ | আপডেট : ১০ অক্টোবর ২০১৯, ১৪:৩৭

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেছেন, যারা বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদকে হত্যা করেছে ভিডিও ফুটেজ দেখে তাদের শনাক্ত করছি আমরা। ঘটনার পর পুলিশ সঙ্গে সঙ্গে গ্রেফতার করেছে অপরাধীদের। ইতোমধ্যে ১৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আরও কেউ জড়িত থাকলে তাদেরও গ্রেফতার করা হবে। খুব শিগগিরই এ মামলার চার্জশিট দেওয়া হবে।

আজ বৃহস্পতিবার (১০ অক্টোবর) স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অফিস কক্ষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, গতকাল আমাদের প্রধানমন্ত্রী এ ব্যাপারে অত্যন্ত শক্ত ভাষায় কথা বলেছেন। তিনি বলেছেন, যারা এই দুষ্কৃতিকারী, যারা এই ধরনের কাণ্ডকারখানা ঘটায়, সেটার সঙ্গে রাজনৈতিক কোনো সম্পৃক্ততা নেই। আমরা সেই বিষয়ে কঠিন ও কঠোর। তিনি পাশাপাশি এই কথাও বলেছেন, কোনো ইনফরমেশন (তথ্য) কিংবা কোনো কিছু থাকে কিংবা নাও থাকে তাহলে প্রত্যেকটি ছাত্রাবাস যেন তল্লাশির আওতায় নিয়ে আসা হয়।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর যে নির্দেশনা দিয়েছেন আমরা অবশ্যই সবগুলো সামনে নিয়ে কাজ করছি।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমি মনে করি পুলিশ যথাসময়ে তাদের (আবরার হত্যাকারী) অ্যারেস্ট (আটক) করতে সক্ষম হয়েছেন। ঘটনার সঙ্গে সঙ্গে হল থেকে তারা বেরুতে পারেনি, এর আগেই তারা ধরা পড়েছে।

আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘আমরা আশা করি খুব শিগগিরই, খুব স্বল্প সময়ের মধ্যেই এই মামলার পূর্ণাঙ্গ চার্জশিট প্রদান করতে পারব। আমাদের পুলিশ সেই কাজটি করছে। চার্জশিট যাতে নিখুঁত হয়, সব কিছু যাতে নির্ভুল হয়; সে জন্য পুলিশ ইতোমধ্যে কাজ শুরু করছে। আমরা আশা করি একটা নিখুঁত চার্জশিট দিয়ে বিচারের কাজটি দ্রুততার সাথে শেষ হয়, আমরা সেই কাজটি সহজতর করব।

বুয়েট ও জাহাঙ্গীর বিশ্ববিদ্যালয়ে র‌্যাগিং হয়- এমন প্রশ্নে তিনি বলেন, র‌্যাগিং কালচাল পুরানো। বুয়েটে বেশি হয় এই কালচার, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়েও হয়, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়েও হয়। তবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে এ রকম তথ্য আসেনি। যারা ছাত্র রাজনীতির নেতৃত্ব দেন তাদের দায়িত্ব এসব দেখা।

শুদ্ধি অভিযান চলবে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ বিষয়ে পরিষ্কারভাবে বলেছেন, উনি চাচ্ছেন সুশাসন। আমাদের চ্যালেঞ্জ রাষ্ট্রে সুশাসন প্রতিষ্ঠা করা।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ