আটকে পড়া বাংলাদেশিদের ফেরাতে সময় লাগবে : পররাষ্ট্রমন্ত্রী

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ০৯ এপ্রিল ২০২০, ১৮:৩৬

করোনাভাইরাসের কারণে উদ্ভূত পরিস্থিতিতে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে আটকা বাংলাদেশি নাগরিকদের দেশে ফেরাবে সরকার। তবে বিভিন্ন দেশে চলমান লকডাউন, ফ্লাইট বন্ধসহ বিভিন্ন কারণে তাদের ফেরাতে সময় লাগবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন।

আজ বৃহস্পতিবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠক শেষে পররাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের এই তথ্য জানান। 

এসময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে, করোনাভাইরাস সঙ্কটে বিশ্বের যেকোনো প্রান্তে আটকে পড়া বাংলাদেশিদের ফেরত আনা হবে। এরই মধ্যে বিভিন্ন দেশ, এয়ারলাইন্স ও সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে এ বিষয়ে আমাদের আলাপ হয়েছে। কিন্তু বিভিন্ন দেশে লকডাউন, ফ্লাইট বন্ধসহ বিভিন্ন কারণে সময় লাগবে।’

মূলত করোনায় বিভিন্ন দেশে আটকে পড়া প্রবাসীদের দেশে ফেরত আনা নিয়ে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়। এটি দ্বিতীয় আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠক। এর আগে গত ৫ এপ্রিল প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ে প্রথম বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়।

মোমেন বলেন, ‘করোনা ভাইরাস পরিস্থিতিতে তাদের কীভাবে দেখভাল করতে পারি, তাদের মঙ্গল কীভাবে করা যায়, সে বিষয়ে আলোচনা করেছি। প্রবাসী বাংলাদেশিদের যে দুদর্শা সৃষ্টি হয়েছে, তা লাঘব করার চেষ্টা সরকার করছে। এ বিষয়ে বেশ কয়েকটি পদক্ষেপ নিয়েছি।’

করোনাভাইরাসের মধ্যেও যেসব দেশ আমাদের প্রবাসী বাংলাদেশিদের সহায়তা করছে তাদের চিঠিতে ধন্যবাদ জানাবেন- যোগ করেন পরররাষ্ট্রমন্ত্রী।

বৈঠকে প্রবাসীকল্যাণমন্ত্রী ইমরান আহমেদ, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী মো. এনামুর রহমানসহ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের সচিবরা উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে পুরো ভারত ২১ দিনের লকডাউন ঘোষণার পর সেখানে আটকে পড়েছেন দুই হাজার ৫০০ বাংলাদেশি নাগরিক। এর মধ্যে এক হাজারের বেশি ছাত্র-ছাত্রী রয়েছেন।

ভারত আটকাদের দেশে ফেরানোর প্রক্রিয়া নিয়ে জানতে চাইলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘ভারতে আগামী ১৪ এপ্রিল লকডাউন চলায় ওই দেশে আটকে পড়া বাংলাদেশিদের ফেরত আনা খুবই ডিফিকাল্ট। তবে লক ডাউন শেষে আনা যেতে পারে। তবে সেখানে আমাদের পক্ষ থেকে নিয়মিত যোগাযোগ রাখা হচ্ছে।’

এবিএন/জনি/জসিম/জেডি

এই বিভাগের আরো সংবাদ