মুজিববর্ষ উপলক্ষে কানাডা প্রবাসীদের স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচি

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ১৫ মার্চ ২০২০, ১২:৪৭

টরন্টো প্রবাসী বাংলাদেশিরা মুজিববর্ষ উপলক্ষে আয়োজন করেছেন স্বেচ্ছায় রক্তদান কর্মসূচি। কানাডিয়ান ব্লাড সার্ভিসেস’র সহযোগিতায় আগামী ১৭, ১৯ ও ২১ মার্চ তিনদিন শতাধিক বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত কানাডিয়ান নাগরিক রক্তদান করবেন বলে নিবন্ধন সম্পন্ন করেছেন।

উদ্যোগটির আয়োজন সহযোগী হিসেবে রয়েছে কানাডিয়ান ব্লাড সার্ভিসেস, প্রজেক্ট লন্ডন ১৯৭১ ও ক্যানাটা ফাউন্ডেশন। 

আয়োজকেরা বলছেন, জাতির জনকের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি জানাতেই এমন নিখাদ ভালবাসার অনন্য আয়োজন।

মুজিব জন্মশতবর্ষে টরন্টোতে স্বেচ্ছায় রক্তদানের এই কর্মসূচির উদ্যোক্তা ও সমন্বয়কারী ড. সুশীতল চৌধুরী বলেন: বঙ্গবন্ধু সংগ্রাম করেছেন জনগণের অধিকার প্রতিষ্ঠা ও দেশের মানুষের স্বাধীনতার জন্য। ৭ মার্চে দেয়া তার ঐতিহাসিক ভাষণটি পেয়েছে বিশ্ব ঐতিহ্যের স্বীকৃতি। বিবিসি জরিপে জনপ্রিয় ভোটে সর্বকালের শ্রেষ্ঠ বাঙালি হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন বঙ্গবন্ধু। তার জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে দেশে বিদেশে নানা বর্ণিল আয়োজনের উপলক্ষ তৈরি হওয়াটাই স্বাভাবিক। টরন্টোপ্রবাসী বাংলাদেশিরা জাতির পিতার প্রতি ভালোবাসা, শ্রদ্ধা জানাতে নিয়েছেন স্বেচ্ছায় রক্তদানের মতো উদ্যোগ। যারা বঙ্গবন্ধুকে ভালবাসেন, তার জন্মশতবর্ষকে স্মরণীয় করে রাখতে এই উদ্যোগে শরিক হবেন বলে আমরা বিশ্বাস করি।

আগামী ১৭, ১৯ ও ২১ মার্চ তিনদিন কানাডিয়ান ব্লাড সার্ভিসেস এর ব্লুর ইয়াং ২ ব্লুর স্ট্রিট ইষ্ট সেন্টারে সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত রক্ত দেয়া যাবে। ১৭ মার্চ সকাল ৯টায় এই আয়োজনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হবে বলে জানিয়েছেন আয়োজকেরা।

জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে স্বেচ্ছায় রক্তদানের মতো কর্মসূচি একটি বলিষ্ঠ, সময়োপযোগী উদ্যোগ বলে অবহিত করে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন টরন্টো সিটি মেয়র জন টরি, ওন্টারিও প্রিমিয়ার ডগ ফোর্ড, জননিরাপত্তা বিষয়ক মন্ত্রী বিল ব্লেয়ার, বাংলাদেশ কনসাল জেনারেল টরন্টো নাঈম উদ্দিন আহমেদ, বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত এমপিপি ডলি বেগম, কাউন্সিলর গ্যারি ক্রফোর্ড প্রমুখ।

মুজিববর্ষে টরন্টো প্রবাসী বাংলাদেশিদের এই স্বেচ্ছা রক্তদান কর্মসূচিকে অনন্য উদ্যোগ হিসেবে আ্যখ্যায়িত করে বাংলাদেশ কনসাল জেনারেল টরন্টো নাঈম উদ্দিন আহমেদ বলেন, জাতির পিতার প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে স্বেচ্ছায় রক্তদানের চেয়ে মহৎ কর্মসূচি আর কী হতে পারে। আয়োজনের সফলতা কামনা করছি।

রক্তদান কর্মসূচির সহযোগী প্রতিষ্ঠান কানাডিয়ান ব্লাড সার্ভিসেস এর কমিউনিটি রিলেশনশিপ ম্যানেজার ক্রিস্টি আপটন প্রতিক্রিয়ায় বলেন, কানাডিয়ান ব্লাড সার্ভিসেস সহযোগি হিসেবে এই উদ্যোগের সাথে সম্পৃক্ত হতে পেরে গর্বিত।

এবিএন/জনি/জসিম/জেডি

এই বিভাগের আরো সংবাদ