‘ফেসবুক-ইউটিউব এখন বাংলাদেশের কথা শুনছে’

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৭ অক্টোবর ২০২১, ২১:০৫

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির যুগের দুই জায়ান্ট প্রতিষ্ঠান ফেসবুক–ইউটিউব এখন বাংলাদেশের কথা শুনছে বলে মন্তব্য করেছেন টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তফা জব্বার। তিনি বলেন, আগে আমাদের কথা শুনত না তারা। এখন শুনছে। সেই সক্ষমতা আমরা অর্জন করেছি। তারা তাদের কমিউনিটি উপযোগী করে ফেসবুক–ইউটিউব চালায়। আমরা বলেছি, বাংলাদেশে ফেসবুক–ইউটিউব চালাতে হবে বাংলাদেশের কমিউটি উপযোগী করে। এ ব্যাপারে আমরা তাদেরকে কড়া ভাষায় চিঠি দেব।

বুধবার (২৭ অক্টোবর) দুপুরে সচিবালয়ে বিএসআরএফ সংলাপে এ তথ্য জানান মন্ত্রী।

মন্ত্রী বলেন তবে সাম্প্রদায়িক সহিংসতার পেছনে ফেসবুক ইউটিউবকে এককভাবে দায়ী করা যাবে না। যখন দেশে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের দাপট ছিল না, তখনও এ ধরনের (সাম্প্রদায়িক হামলা ও গুজব) ঘটনা ঘটেছে। এগুলো রোধ করার জন্য প্রয়োজন সচেতনতা।

তিনি বলেন, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারের নিয়ম মানাতে যত ধরনের চাপ দেয়া দরকার, তার সবই দিচ্ছে সরকার। ৩০০টি ফেসবুক আইডি বন্ধ করতে বলা হয়েছিল, তার মধ্যে ২৬৪টি বন্ধ করা হয়েছে। ফেসবুকের ভিডিও, ছবি ও লাইভ সবই বন্ধ করা সম্ভব। এতে গুজব রটানোও খুব কঠিন হয়ে যাবে। কিন্তু বাংলাদেশ ফেসবুকের জন্য বিশাল বাজার বলে তারা এখনই অনেক কিছু করছে না।  

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন অপব্যবহার হচ্ছে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, এটি অনাকাঙ্ক্ষিত। ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন মানুষের নিরাপত্তা হরণ করার জন্য বানানো হয়নি।

এবিএন/মমিন/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ
ksrm