আজকের শিরোনাম :

নোয়াখালীর ভাসানচরে আরও ৩৭৯ রোহিঙ্গা

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৫ নভেম্বর ২০২১, ২০:১৩

নোয়াখালীর হাতিয়ার ভাসানচরে রোহিঙ্গা স্থানান্তরের অংশ হিসেবে নতুন করে আরও ৩৭৯ রোহিঙ্গাকে নেওয়া হয়েছে। এটা স্থানান্তর প্রক্রিয়ার সপ্তম ধাপ।

এর আগে, ৬ ধাপে ১৮ হাজার ৩৪৭ রোহিঙ্গা নাগরিককে অস্থায়ী বসবাসের জন্য ভাসানচর আশ্রয়ণে পাঠানো হয়েছিল।
বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) বিকেল তিনটায় তারা ভাসানচরে পৌঁছে। এর আগে সকালে চট্টগ্রাম থেকে ২টি জাহাজে ভাসানচরের উদ্দেশ্যে রওনা হয়। নতুন করে আসা ৩৭৯ রোহিঙ্গার মধ্যে ১৩২জন পুরুষ, ৯৮জন মহিলা ও ১৪৯জন শিশু রয়েছে।

ভাসানচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম জানান, নিয়মানুযায়ী বৃহস্পতিবার আসা রোহিঙ্গাদের প্রথমে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করানো হয়। এরপর নিয়ে যাওয়া হয় রোহিঙ্গাদের জন্য তৈরি আশ্রয়ণ প্রকল্পের ওয়্যার হাউজে। সেখানে তাদের ভাসানচরে বসবাসের বিভিন্ন নিয়মকানুন সম্পর্কে ধারনা দেন নৌ-বাহিনীর সদস্যরা।

এর আগে গত বুধবার ভাসানচরের উদ্দেশ্যে কক্সবাজার থেকে আসা রোহিঙ্গাদের চট্টগ্রাম নৌ-বাহিনীর তত্ত্বাবধানে রাখা হয়। রাতে তারা চট্টগ্রামের বি এন শাহীন কলেজের ট্রানজিট ক্যাম্পে অবস্থান করে।

তথ্যমতে, স্বেচ্ছায় ভাসানচরে যেতে ইচ্ছুক এরকম রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে স্থানান্তর করা হচ্ছে। আগামী কয়েক দিনের মধ্যে আরও কিছু রোহিঙ্গাকে স্থানান্তরের ভাবনা আছে।

গত বছরের ৪ ডিসেম্বর আনুষ্ঠানিকভাবে ভাসানচরে রোহিঙ্গা হস্তান্তর প্রক্রিয়া শুরু হয়। প্রথম দফায় ১৬৪২জন, ২৯ ডিসেম্বর দ্বিতীয় দফায় ১৮০৪জন, চলতি বছরের ২৯ ও ৩০ জানুয়ারি তৃতীয় দফার ৩২৪২জন, ১৪ ও ১৫ ফেব্রুয়ারি চতুর্থ দফায় ৩০১৮জন এবং পঞ্চম দফায় ৩ ও ৪ মার্চ ৪০২১জন, ষষ্ঠ দফায় ১ ও ২ এপ্রিল ৪৩৭২ জন রোহিঙ্গাকে ভাসানচর স্থানান্তর করা হয়।

গত বছরের মে মাসে সাগরপথে অবৈধভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার চেষ্টাকালে ৩০৬জন রোহিঙ্গাকে উদ্ধার করে সেখানে নিয়ে রাখা হয়। এ নিয়ে মোট ১৮৭২৬ জন রোহিঙ্গা ভাসানচরে অবস্থান করছে।

এবিএন/মমিন/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ
ksrm