ঝিনাইদহে বিএনপির সমাবেশ

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ৩০ ডিসেম্বর ২০২১, ১১:১৭

‘দেশে জনতার যে উত্তাল ঢেউ উঠেছে এই ঢেউয়ে শেখ হাসিনা সরকারের পতন হবে। এ সরকার মানুষের সাংবিধানিক অধিকার ধ্বংস করেছে। বিএনপি’র নেতাকর্মীদের খুন ও গুম করেছে। তাদের বিরুদ্ধে হাজার হাজার মামলা দিয়ে নেতাকর্মীদের জেলে পুরেছে। বুধবার দুপুরে ঝিনাইদহ উজির আলী স্কুল মাঠে জেলা বিএনপির আহ্বায়ক এ্যাড. এস এম মশিয়ুর রহমান’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান নিতাই রায় চৌধুরী এ কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, বিএনপি জাতীয় স্বার্থের পক্ষের দল। আর আওয়ামী লীগ গণতন্ত্র বিরোধী ও  জাতীয় স্বার্থ বিরোধী দল। বেগম খালেদা জিয়া রাজপথে সংগ্রাম করে দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছিলেন। আমাদেরও রাজপথে আন্দোলন করে বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে।

নিতাই রায় চৌধুরী আরও বলেন, এ সরকারের পতন পথ তৈরী হয়ে গেছে। গণতন্ত্রের আন্দোলন গণঅভ্যুথানে রূপ নিচ্ছে। দ্রুত বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি দিয়ে বিদেশে সুচিকিৎসা নেওয়ার জন্য সরকারের প্রতি দাবি জানান তিনি।
বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মসিউর রহমান তার বক্তব্যে বলেন, পুলিশ প্রশাসন এ সমাবেশ বন্ধ করতে বিভিন্ন স্থানে নেতাকর্মীদের বাড়িতে হানা দিয়েছে। আসার পথে বাঁধার সৃষ্টি করেছে।

তিনি বলেন, গণতন্ত্র ও মানবাধিকার পুনরুদ্ধার করতে রাজপথের আন্দোলন আরও জোরদার করতে হবে। সমাবেশে জেলা বিএনপির সদস্য সচিব এ্যাড. এম এ মজিদ এর সঞ্চালনায়  অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মসিউর রহমান, কুষ্টিয়া জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সোহরাব উদ্দিন, কেন্দ্রীয় বিএনপির মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক এ্যাড. আসাদুজ্জামান, খুলনা বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক অনিন্দ ইসলাম অমিত, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক জয়ন্ত কুমার কুন্ডু। এছাড়াও বক্তব্য রাখেন বিএনপি নেতা এম এ ওহাব, শহীদুজ্জামান বেল্টু, আমিরুজ্জামান খান শিমুলসহ বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের স্থানীয় ও কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ।

বুধবার সকাল ১১ টায় আনুষ্ঠানিক ভাবে সমাবেশ শুরু হয়। এর আগে ঝিনাইদহের বিভিন্ন উপজেলা, পার্শবর্তী মাগুরা, কুষ্টিয়া, যশোর ও চুয়াডাঙ্গা থেকে হাজার হাজার নেতাকর্মী সমাবেশ স্থলে হাজির হয়।

এবিএন/নয়ন খন্দকার/গালিব/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ