পাকিস্তানকে ২০২ রানের লক্ষ্য দিল বাংলাদেশ

  অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশ: ২৯ নভেম্বর ২০২১, ১৪:২৫ | আপডেট : ২৯ নভেম্বর ২০২১, ১৭:২১

প্রথম ইনিংসে দলকে টেনে তোলা লিটন খেলেন ইনিংস সর্বোচ্চ এবং নিজের ক্যারিয়ার সেরা ১১৪ রানের ইনিংস। দ্বিতীয় ইনিংসেও সেই লিটনেই রক্ষা স্বাগতিক শিবিরের। এবার লিটনের ব্যাটে আসে ইনিংস সর্বোচ্চ ৫৯ রান। প্রথম ইনিংসে ৩৩০ রানে অলআউট হওয়া বাংলাদশ দল ৪৪ রানে লিড নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে স্কোর বোর্ডে তুলেছে ১৫৭ রান। সব মিলিয়ে টাইগারদের সংগ্রহ ২০১ রান। চট্টগ্রাম টেস্ট জিততে ২০২ রান করতে হবে পাকিস্তানকে।

৬ উইকেট হারিয়ে ১৫৯ রান নিয়ে চতুর্থ দিনের দ্বিতীয় সেশনের খেলা শুরু করে বাংলাদেশ দল। রাব্বি মাথায় আঘাত পেয়ে ছিটকে যাওয়ায় দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ের সুযোগ পেয়েছেন নুরুল হাসান সোহান। চতুর্থ দিনের দ্বিতীয় সেশনে লিটন ৩২ ও সোহান শূন্য রানে অপরাজিত থেকে আবার ব্যাটিংয়ে নামেন।

বিরতি থেকে ফিরেই অ্যাপ্রোচে খানিকটা পরিবর্তন আনেন দুই ব্যাটসম্যান। আরও একটু আক্রমণাত্মক হয়ে লিডটা দ্রুত বাড়িয়ে নেওয়াই ছিল লক্ষ্য। তাতে কিছুটা সফলতাও মিলেছে বৈকি! দ্বিতীয় সেশনের প্রথম সাত ওভারে তুলে ফেলে ৩৩ রান। মাঝে লিটন ফিফটির দেখা পান লিটন। প্রথম ইনিংসের দারুণ সেঞ্চুরির পর দ্বিতীয় ইনিংসে লড়াকু এক ফিফটি তুলে নেন তিনি।

লিটনের অর্ধশতকের পর অতি আক্রমণাত্মক হয়েই উইকেট খোয়া গেল সোহানের। সাজিদ খানকে লং অন দিয়ে তুলে মারতে গিয়ে বাউন্ডারি লাইনে ধরা পড়েছেন বদলি হিসেবে নামা এই ব্যাটসম্যান। ফেরেন ১৫ রান করে। পরে ৪ রানের ব্যবধানে লিটন ৫৯ রান করে আর সাজিদ খানের শিকার হলে তাইজুল ইসলাম, আবুদ জায়েদ রাহি, এবাদতরা স্কোর বোর্ডে আর কোন রান যোগ করতে পারেননি। এতে ১৫৭ রানে অলআউট বাংলাদেশ।

সাগরিকায় প্রথম ইনিংসে লিটনের ১১৪ ও মুশফিকের ৯১ রানের কল্যাণে ৩৩০ রান করে বাংলাদেশ দল। পাকিস্তানের হয়ে হাসান আলি নেন ৫ উইকেট। পরে নিজেদের ইনিংস শুরু করতে নামা পাকিস্তানকে ২৮৬ রানে আটকে দেয় বাংলাদেশ। আবিদ আলি সর্বোচ্চ ১৩৩ রান করে। টাইগার স্পিনার তাইজুল ইসলাম নেন ৭ উইকেট। পরে ৪৪ রানে লিড নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করে ১৫৭ রানে থামে বাংলাদেশের ইনিংস। লিটনের ব্যাট থেকে আসে ৫৯ রান। শাহীন শাহ আফ্রিদি নেন ৫ উইকেট। জয়ের জন্য সফরকারীদের চাই ২০২ রান।

এবিএন/সাদিক/জসিম

এই বিভাগের আরো সংবাদ
ksrm